ইসলামপুরে পুলিশ কনস্টেবলের বিরুদ্ধে বিয়ের প্রলোভন ধর্ষণের অভিযোগ, প্রেমিকার অনশন

জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলার গাইবান্ধা ইউনিয়নের নাপিতেরচর শাহপাড়া গ্রামে বিয়ের দাবিতে এক পুলিশ কনস্টেবলের বাড়িতে তার প্রেমিকা অনশন শুরু করেছেন।
অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবল ওই গ্রামের আতিকুর রহমান রাসেলের ছেলে। তিনি বর্তমানে নেত্রকোণা পুলিশ লাইনে কর্মরত আছেন বলে জানা গেছে।
এদিকে প্রতারণার শিকার কলেজ ছাত্রীর বাবা আইনি প্রতিকার চেয়ে মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় নেত্রকোনা পুলিশ সুপার বরাবর লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন।
অভিযোগ সূত্র জানায়, অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবল ও ভুক্তভোগী কলেজ ছাত্রী একসাথে পড়ালেখা করতেন। লেখাপড়ার একপর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক হয়। পরবর্তীতে তার পুলিশের কনস্টেবল পদে চাকরি হয়। বিয়ে করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে তিনি ওই ছাত্রীকে বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে যেতেন।
অভিযোগে আরো বলা হয়, গত সোমবার ভোরে বিয়ে করার কথা বলে কনস্টেবল ওই ছাত্রীকে বাবার বাড়ি থেকে তার বাড়িতে নিয়ে যান। কনস্টেবলের অভিভাবক বিয়েতে রাজি না হওয়ায় কৌশলে তিনি বাড়ি থেকে পালিয়ে আত্মগোপনে চলে যান। কিন্তু এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ভুক্তভোগী ছাত্রী ওই বাড়িতেই অবস্থান করছেন। 
সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, পুলিশ কনস্টেবল পার্শ্ববর্তী সরকারপাড়ার কৃষক পরিবারের কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে বিয়ে করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে দীর্ঘদিন থেকে বিভিন্ন সময় অন্তরঙ্গ মিলিত হন। ওইছাত্রী উপজেলা শহরস্থ সরকারি কলেজে ইতিহাস বিভাগের অনার্স শ্রেণীতে অধ্যায়নরত।
বিয়ের দাবিতে প্রেমিক পুলিশের বাড়িতে অবস্থানরত ওই ছাত্রীর অভিযোগ, দীর্ঘদিন থেকে ওই পুলিশ কনস্টেবল তার সাথে প্রেমের নামে সবকিছু করে এসেছেন। ইতোমধ্যে তিনও তাকে একাধিকবার বিয়ের আশ্বাস দিয়ে বিভিন্ন জায়গায় ভ্রমণে গিয়ে অন্তরঙ্গে মিলিত হন। সম্প্রতি বিয়ের চাপ দিলে নানা তালবাহানা করেন তিনি।

 

তিনি আরো জানান, পুলিশ কনস্টেবলের অন্যত্র বিয়ে ঠিক হওয়ার খবর পেয়ে সোমবার (২৫ জানুয়ারি) সকালে তার বাড়িতে বিয়ের দাবিতে অবস্থান নেওয়া হয়েছে। তাকে বাড়িতে দেখে অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবল আত্মগোপনে চলে গেছে।
স্থানীয় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিম ফটিক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।
অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবলের বাবা আতিকুর রহমান রাসেল জানান, ‘আমার ছেলে বাড়িতে নেই। ছেলের সাথে মেয়েটির কী সম্পর্ক আছে, সেটাও আমি জানি না। এখন কী হবে সেটাও আমি বলতে পারবো না।’
dailykagojkolom.com এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।